Swadhinatar Path (স্বাধীনতার পথ)

Oupanibeshik Bharate Bandira (ঔপনিবেশিক ভারতে বন্দিরা)

We sell our titles through other companies
Disclaimer :You will be redirected to a third party website.The sole responsibility of supplies, condition of the product, availability of stock, date of delivery, mode of payment will be as promised by the said third party only. Prices and specifications may vary from the OUP India site.

ISBN:

9780199485581

Publication date:

19/01/2018

Paperback

314 pages

We sell our titles through other companies
Disclaimer :You will be redirected to a third party website.The sole responsibility of supplies, condition of the product, availability of stock, date of delivery, mode of payment will be as promised by the said third party only. Prices and specifications may vary from the OUP India site.

ISBN:

9780199485581

Publication date:

19/01/2018

Paperback

314 pages

Mushirul Hasan (মুশিরুল হাসান)

এই গ্রন্থে স্বাধীনতা আন্দোলনের প্রেক্ষাপটে নির্বাচিত কয়েকজন রাজনৈতিক বন্দিদের সংগ্রাম এবং প্রত্যক্ষ অভিজ্ঞতাকে তুলে ধরা হয়েছে।

Rights:  World Rights

Mushirul Hasan (মুশিরুল হাসান)

Description

ব্রিটিশ-শাসিত ভারতবর্ষে ভীতি সঞ্চার করা ও প্রতিরোধ মোকাবিলার জন্য ঔপনিবেশিক রাষ্ট্রের সবচেয়ে নির্মম হাতিয়ার ছিল কারাগার। কয়েকজন রাজবন্দির সম্যক অভিজ্ঞতাকে বিশ্লেষণ করে এই বই তাঁদের লড়াই এবং স্বাধীনতা সংগ্রামের প্রেক্ষাপটে তাঁদের অবস্থানকে তুলে ধরেছে।
মহম্মদ আলি, মৌলানা আবুল কালাম আজাদ, নেহরু পরিবার, এবং মহাত্মা গান্ধী থেকে শুরু করে এম এন রায়ের মতো কমিউনিস্ট, এবং পাশাপাশি সেই সময়ের কয়েকজন উল্লেখযোগ্য নারী, যেমন ব্যক্তিত্বময়ী চিকিৎসক রশিদ জাহান, অরুণা আলি, বিজয়লক্ষ্মী পণ্ডিত, এবং সরোজিনী নাইডু—এঁদের কারাগারের গণ্ডির ভিতর কাটানো জীবনের কিছু স্পষ্ট ঝলকের এক ধারাবাহিক বর্ণনা আমরা পাই, যা এক-একসময় গভীরভাবে ব্যক্তিগত এবং একাধারে রাজনৈতিকও। প্রভূত গবেষণার ফসল এই বইটি বিভিন্ন সংরক্ষণাগারের দলিল, ব্যক্তিগত কাগজপত্র, সংবাদপত্র, প্রতিবেদন, স্মৃতিকথা, জীবনী, এবং আত্মজীবনীর উপর ভিত্তি করে লেখা।
নিঃসঙ্গতার তীব্র যন্ত্রণা, একাকীত্ব থেকে জন্ম নেওয়া কাব্য, এবং স্বাধীনতার জ্বলন্ত আকাঙ্ক্ষাকে ব্যক্ত করে স্বাধীনতার পথ বিস্মৃতির অতলে তলিয়ে যাওয়া বিবরণ ও কাহিনিতে নতুন প্রাণসঞ্চার করেছে।

About the Author

মুশিরুল হাসান

নয়া দিল্লির জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়ার ইতিহাসের প্রাক্তন অধ্যাপক। তিনি নয়া দিল্লির ন্যাশনাল আর্কাইভস অব ইন্ডিয়ার প্রাক্তন ডিরেক্টর জেনারেল (২০১০–১৩) এবং জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়ার উপাচার্য (২০০৪–০৯) ছিলেন। ২০০৭-এ তাঁকে ‘পদ্মশ্রী’ সম্মানে ভূষিত করা হয়।

Mushirul Hasan (মুশিরুল হাসান)

Table of contents


কৃতজ্ঞাতা স্বীকার

১. ভূমিকা: 'বন্দির স্বর'
২. 'ভাঙা স্তম্বের গায়ে সূর্যালোক'
৩. কারাগার—'স্বাধীনতার প্রবেশদ্বার'
৪. করাচি মামলা
৫. কলকাতার মৌলানা: কাঠগড়ায় উপনিবেশবাদ
৬. কারাগারে কবিরা
৭. 'স্বাধীনতার সুদীর্ঘ পথ'
৮. কারাগারে রৌদ্র ও ছায়া
৯. 'পাপের বোঝা পূর্ণ হলে এই জাহাজ ডুববে'
১০. 'তোমার পতাকা ধুলোয় লুটোবে': কারাগারে নেহরুরা
১১. করা প্রকোষ্ঠে ইতিহাস রচনা
১২. উপসংহার: স্বাধীনতার মূল্য

পরিশিষ্ট ১: অসির-ই জিন্দন—কারাগারে লেখা কবিতা
পরিশিষ্ট ২: তালিকা
নির্দেশিকা
লেখক পরিচিতি

Mushirul Hasan (মুশিরুল হাসান)

Mushirul Hasan (মুশিরুল হাসান)

Mushirul Hasan (মুশিরুল হাসান)

Description

ব্রিটিশ-শাসিত ভারতবর্ষে ভীতি সঞ্চার করা ও প্রতিরোধ মোকাবিলার জন্য ঔপনিবেশিক রাষ্ট্রের সবচেয়ে নির্মম হাতিয়ার ছিল কারাগার। কয়েকজন রাজবন্দির সম্যক অভিজ্ঞতাকে বিশ্লেষণ করে এই বই তাঁদের লড়াই এবং স্বাধীনতা সংগ্রামের প্রেক্ষাপটে তাঁদের অবস্থানকে তুলে ধরেছে।
মহম্মদ আলি, মৌলানা আবুল কালাম আজাদ, নেহরু পরিবার, এবং মহাত্মা গান্ধী থেকে শুরু করে এম এন রায়ের মতো কমিউনিস্ট, এবং পাশাপাশি সেই সময়ের কয়েকজন উল্লেখযোগ্য নারী, যেমন ব্যক্তিত্বময়ী চিকিৎসক রশিদ জাহান, অরুণা আলি, বিজয়লক্ষ্মী পণ্ডিত, এবং সরোজিনী নাইডু—এঁদের কারাগারের গণ্ডির ভিতর কাটানো জীবনের কিছু স্পষ্ট ঝলকের এক ধারাবাহিক বর্ণনা আমরা পাই, যা এক-একসময় গভীরভাবে ব্যক্তিগত এবং একাধারে রাজনৈতিকও। প্রভূত গবেষণার ফসল এই বইটি বিভিন্ন সংরক্ষণাগারের দলিল, ব্যক্তিগত কাগজপত্র, সংবাদপত্র, প্রতিবেদন, স্মৃতিকথা, জীবনী, এবং আত্মজীবনীর উপর ভিত্তি করে লেখা।
নিঃসঙ্গতার তীব্র যন্ত্রণা, একাকীত্ব থেকে জন্ম নেওয়া কাব্য, এবং স্বাধীনতার জ্বলন্ত আকাঙ্ক্ষাকে ব্যক্ত করে স্বাধীনতার পথ বিস্মৃতির অতলে তলিয়ে যাওয়া বিবরণ ও কাহিনিতে নতুন প্রাণসঞ্চার করেছে।

About the Author

মুশিরুল হাসান

নয়া দিল্লির জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়ার ইতিহাসের প্রাক্তন অধ্যাপক। তিনি নয়া দিল্লির ন্যাশনাল আর্কাইভস অব ইন্ডিয়ার প্রাক্তন ডিরেক্টর জেনারেল (২০১০–১৩) এবং জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়ার উপাচার্য (২০০৪–০৯) ছিলেন। ২০০৭-এ তাঁকে ‘পদ্মশ্রী’ সম্মানে ভূষিত করা হয়।

Read More

Table of contents


কৃতজ্ঞাতা স্বীকার

১. ভূমিকা: 'বন্দির স্বর'
২. 'ভাঙা স্তম্বের গায়ে সূর্যালোক'
৩. কারাগার—'স্বাধীনতার প্রবেশদ্বার'
৪. করাচি মামলা
৫. কলকাতার মৌলানা: কাঠগড়ায় উপনিবেশবাদ
৬. কারাগারে কবিরা
৭. 'স্বাধীনতার সুদীর্ঘ পথ'
৮. কারাগারে রৌদ্র ও ছায়া
৯. 'পাপের বোঝা পূর্ণ হলে এই জাহাজ ডুববে'
১০. 'তোমার পতাকা ধুলোয় লুটোবে': কারাগারে নেহরুরা
১১. করা প্রকোষ্ঠে ইতিহাস রচনা
১২. উপসংহার: স্বাধীনতার মূল্য

পরিশিষ্ট ১: অসির-ই জিন্দন—কারাগারে লেখা কবিতা
পরিশিষ্ট ২: তালিকা
নির্দেশিকা
লেখক পরিচিতি

Read More